কাউন্ট ডাউন ১০ ডিসেম্বর

পুরান ঢাকায় ইশরাকের ওপর ‘ছাত্রলীগের’ হামলা, গাড়ি ভাঙচুর

লন্ডন, ৪ ডিসেম্বর: ঢাকায় গণসমাবেশ উপলক্ষে লিফলেট বিতরণের সময় বিএনপি নেতা প্রকৌশলী ইশরাক হোসেনের ওপর হামলার হামলার ঘটনা ঘটেছে। আজ রবিবার ঢাকার জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে এই হামলার ঘটনা ঘটে। জবি শাখা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা এই হামলা করেছে বলে জানা গেছে। এ সময় তার উপর হামলা করে তাঁর গাড়ি ভাঙচুর করা হয়।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বিএনপি নেতা ইশরাক হোসেন প্রায় শতাধিক বিএনপি ও ছাত্রদলের নেতাকর্মীসহ মিছিল করে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকের সামনে এলে শাখা ছাত্রলীগের কয়েকজন নেতাকর্মী হামলা করেন। এরপর ক্যাম্পাসের ভিতরে থাকা শাখা ছাত্রলীগের শতাধিক নেতাকর্মী প্রধান ফটকের সামনে এসে সংঘর্ষে জড়ান।

এর আগে ইশরাক হোসেন মতিঝিল, গোপিবাগ এলাকায় গণসংযোগ চালান। সেই সময় ঢাকা বিভাগীয় গণসমাবেশ উপলক্ষে বাসায় বিএনপির নেতাকর্মীদের পুলিশি হয়রানির অভিযোগ এনে নেতাকর্মীদের হয়রানি না করার জন্য ওয়ারী থানায় অনুরোধ জানান।

গোপীবাগ এলাকায় সংযোগ শুরু করে ওয়ারী, ইত্তেফাক মোড় হয়ে বংশাল, জয়কালী মন্দির, টিপু সুলতান রোড, রথখোলাসহ ঢাকার বিভিন্ন এলাকা প্রদক্ষিণ করেন। পরে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকের সামনে এলে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

এছাড়াও ঘটনা ভিডিও ধারণ করার সময় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪ জন প্রতিনিধির (সাংবাদিক) উপর আক্রমণ করা হয়। পরে তাদেরকে মেডিকেলে নিয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়। আহত জবি প্রতিনিধিরা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনের কাছে অভিযোগ জানিয়েছেন।

শাখা ছাত্রদলের সভাপতি আসাদুজ্জামান আসলাম বলেন, ‘ইশরাক ভাই বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে পৌঁছলে শাখা ছাত্রলীগ রড, হকিস্টিক ও দেশীয় অস্ত্র নিয়ে তার ওপর হামলা করেছে। এতে জগন্নাথ ছাত্রদলসহ বিভিন্ন ইউনিটের ২০-২৫ জন আহত হয়েছেন। যারা মিটফোর্ডসহ বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন। আমরা জগন্নাথ ছাত্রদল এ ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই।’

সম্পরকিত প্রবন্ধ

Back to top button
Close
Close