নিউজ

ডমেস্টিক ভায়োলেন্সের শিকার ভিকটিমদের জন্য ফেমেলি কোর্ট নিরাপদ নয়

।। সুরমা প্রতিবেদন ।।
লণ্ডন, ২০ ফেব্রুয়ারী – ডমেস্টিক ভালোলেন্স ভিকটিমদের জন্য ফেমেলি কোর্ট নিরাপদ নয় বলে মনে করেন ব্রিটিশ আইনজীবি ও পেশাজীবিদের অনেকে। কারণ বিচারকদের কেউ কেউ যৌন হয়রানি বিষয়ে পুরাতন ধারণা পোষণ করে থাকেন। সম্প্রতি ১৩০ জন আইনজীবি ও পেশাজীবি স্বাক্ষরিত একটি চিঠিতে তারা এ দাবী করেছেন।

১৯ ফেব্রুয়ারী, বুধবার ফেমেলি কোর্টের বিচারক রবিন টলসন কিউসির একটি বিস্তৃত সমালোচিত রায় দেওয়ার প্রতিক্রিয়ায় জনসাধারণের এই হস্তক্ষেপ সামনে আসে। ওই বিচারক রায় দিয়েছিলেন, যেহেতু কোনও মহিলা তার সঙ্গীকে তার উপর হামলার করা থেকে বিরত রাখতে শারীরিক পদক্ষেপ গ্রহণ করেননি এটি ধর্ষ নয়।

গত মাসে বিচারক টলসনের সিদ্ধান্ত উচ্চ আদালত উব্বে দিয়েছিলো। মিসেস জাস্টিস রাসেল বলেছেন, সম্মতি ইস্যুতে বিচারকের দৃষ্টিভঙ্গি বর্তমান আইনশাস্ত্রের সাথে ষ্ক্রসুস্পষ্টভাবে মতবিরোধম্ব ছিলো।

রাসেল পরামর্শ দিয়েছিলেন যে, যৌন নিপীড়নের অভিযোগ বিবেচনা করার সময় পারিবারিক আদালতের বিচারকদের প্রশিক্ষণের প্রয়োজন হতে পারে।

ফেমেলি কোর্টের মামলা সংক্রান্ত বিষয়ে ভুক্তভোগীদের সংগঠনের চিঠি নিয়ে বুধবার আইনজীবিরা অনেকটা এগিয়েছেন। তারা টলিসনের সাম্প্রতিক মামলাগুলি পর্যালোচনা করার আহবান জানিয়েছেন।

জাস্টিস সেক্রেটারি রবার্ট বাকল্যাণ্ড কিউসি এবং ফেমেলি কোর্টের প্রেসিডেণ্ট অ্যান্ড্রু ম্যাকফার্লেনকে উদ্দেশ্য করে লেখা চিঠিটি বিবিসির ভিক্টোরিয়া ডার্বিশায়ার প্রোগ্রামে প্রকাশ করা হয়েছে।

চিটিতে বলা হয়েছে, পারিবারিক নির্যাতন এবং গুরুতর যৌন নির্যাতনের কিছু বিষয় বোঝার অভাব এবং ভুক্তভোগীদের সুষ্ঠু বিচারের জন্য?অনুশীলনের নির্দেশনা প্রয়োগে ব্যর্থতাসহ আরও বিস্তৃত সিস্টেমেটিক সমস্যা রয়েছে।

মনে করা হয় যে, ট্রেনিং এবং স্পষ্ট নিয়ম থাকা সত্তে¡ও এটি শিশু ও মহিলাদেরকে মারাত“ক ক্ষতির ঝুঁকিতে ফেলে এবং আমাদের আইনী ব্যবস্থার বিশ্বাসযোগ্যতাকে ক্ষুন্ন করে। আদালতগুলিকে খুব বেশী এখন আর নির্যাতনের শিকার হওয়া মহিলাদের নিরাপদ স্থান হিসেবে দেখা যায় না।
সূত্র: গার্ডিয়ান।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

Back to top button
Close
Close