নিউজ

সিলেট-৩ আসনে হাবিব বিজয়ী, লণ্ডনে মিস্টি বিতরণ

।। সুরমা প্রতিবেদন ।।
লণ্ডন, ১০ সেপ্টেম্বর : সিলেট-৩ উপ নির্বাচনে জয়ী হয়েছেন আওয়ামী লীগের প্রার্থী, বৃটেনপ্রবাসী হাবিবুর রহমান হাবিব। বিশাল ব্যবধানে প্রতিদ্বন্দ্বী জাতীয়পার্টির প্রার্থী আতিকুর রহমান আতিককে পরাজিত করে তিনি বিজয়ী হয়েছেন। কমিউনিটির মানুষের সাথে সুসম্পর্ক রক্ষা করে চলা হাবিবের আনন্দ বিরাজ করছে বৃটেনের বাংলাদেশীদের মাঝেও। হাবিবুর রহমানের বিজয়ে বৃটেনে হাবিবের বন্ধু এবং দলের নেতাকর্মীরা মিস্টি বিতরণ করেছেন। গত ৭ সেপ্টেম্বর, মঙ্গলবার লণ্ডন বাংলা প্রেসক্লাব অফিসে মিস্টি বিতরণ করেন হাবিবের বন্ধু আনসার মিয়া।

ফলাফল প্রকাশের পরক্ষণেই প্রতিকিয়া জানিয়ে হাবিবুর রহমান হাবিব নির্বাচনী এলাকার উন্নয়নে তিনি অতীতের মধ্যে কর্মকাণ্ড অব্যাহত রাখবেন বলে প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। উল্লেখ্য, গত ৪ সেপ্টেম্বর, শনিবার সিলেট-৩ আসনে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এ আসনের এমপি ছিলেন প্রয়াত মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী। তাঁর মৃত্যুর পর এ আসনে উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।
নির্বাচনে আওয়ামী লীগ প্রাথী হাবিবুর রহমান হাবিব পেয়েছেন ৮৯,৭০৫ ভোট। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্ধী জাতীয়পার্টির প্রার্থী আতিকুর রহমান আতিক পেয়েছেন ২৪,৬০৪ ভোট। ফলাফল অনুযায়ী নির্বাচনী আসনের তিন উপজেলা দক্ষিণ সুরমা, ফেঞ্চুগঞ্জ ও বালাগঞ্জে জয় পেয়েছেন আওয়ামী লীগ প্রার্থী হাবিবুর রহমান হাবিব। দক্ষিণ সুরমা উপজেলায় হাবিবুর রহমান হাবিব নৌকা প্রতীকে ভোট পেয়েছেন ৪৩,২০৮ ভোট। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্ধী জাতীয়পার্টির প্রার্থী আতিকুর রহমান আতিক পেয়েছেন ১৬,৭১১ ভোট। এছাড়া বালাগঞ্জে নৌকা প্রতীকে হাবিব পেয়েছেন ২৪,২৭৩ ও ফেঞ্চুগঞ্জে পেয়েছেন ২২,২২৪ ভোট। তাঁর প্রতিদ্বন্ধী আতিকুর রহমান আতিক বালাগঞ্জে পেয়েছেন ৩,৩৩৭ ও ফেঞ্চুগঞ্জে পেয়েছেন ৪৫৫৬ ভোট। জাতীয়পার্টির প্রার্থী আতিকুর রহমান আতিক নিজ এলাকা মোগলাবাজারে বেশী ভোট পেলেও সেখানে জয়ী হয়েছেন আওয়ামী লীগের হাবিবুর রহমান হাবিব।

জেলা প্রশাসক ও রিটার্নিং কর্মকর্তা নির্বাচনী ফলাফলের ঘোষণার এক পর্যায়ে হার মেনে নেন আতিকুর রহমান আতিক। তিনি এ সময় সংক্ষিপ্ত বক্তৃতায় বিজয়ী প্রার্থী হাবিবকে ধন্যবাদ জানান। আওয়ামী লীগের প্রার্থী হাবিবুর রহমান হাবিবকে অভিনন্দন জানিয়ে তিনি বলেন, ‘নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে। তবে কিছু কিছু কেন্দ্রে তার এজেন্টদের কেন্দ্র থেকে বের করে দেয়া হয়েছিলো। এ কারণে ভয়ে অনেক ভোটারই ভোট দিতে যায়নি। এরপরও ফলাফল মেনে নিয়ে তিনি মেনে নিয়েছেন। বলেন, আগামীতে বিজয়ী প্রার্থীর প্রতি সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে।

সম্পরকিত প্রবন্ধ

Back to top button
Close
Close